শনিবার | ২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম

হবিগঞ্জ সদরে অশোভন আচরণে বিরক্ত রোগীর স্বজনরা

প্রকাশিত :

স্টাফ রিপোর্টার ॥ হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে চিকিৎসা কার্যক্রম চলে ইর্ন্টানী দিয়ে। এদের লিখিত ভুল ঔষধ কারণে অনেকের জীবন সংকটাপন্ন হয়ে পড়ে। এনিয়ে রোগীদের সাথে প্রায়ই বাকবিতন্ডার ঘটনা ঘটছে। এরপরও কর্তৃপক্ষ এদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্তা না নেয়ায় তাদের দৌরাত্ম বেড়েই চলেছে। জরুরি বিভাগের ডাক্তার রাত ১২ টার পরই তার এসিরোমে ঘুমিয়ে পড়েন। চিকিৎসা করেন ইর্ন্টানীরা।

জেলার প্রায় ১৭ লাখ মানুষের একমাত্র চিকিৎসা কেন্দ্র সদর হাসপাতাল। কিন্তু এখানে এসেও অনেক রোগীদের ভোগান্তিতে পড়তে হয়।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টার দিকে এক ব্যাংক কর্মকর্তা নারী শিশুকে নিয়ে জরুরি বিভাগে চিকিৎসা করাতে গেলে ডাক্তার না থাকায় ইর্ন্টানীরা মোবাইল ফোন দেখে ওই শিশুর ঔষধ লিখেন। এতে ব্যাংকার নারী ক্ষিপ্ত হন। তখন তিনি বুঝতে পারেন ডাক্তার নয়, ইর্ন্টানী চিকিৎসা করছে। এসময় ডাক্তার পাশের রুমে বিশ্রামে ছিলেন। শিশুটিকে যে ঔষধ লেখা হয়েছে তাও ছিলো ভুল। এক পর্যায়ে ইর্ন্টানীরা তার সাথে অশোভন আচরণ করলে তিনি লজ্জায় হাসপাতাল থেকে চলে যান। এমন আরও অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে। এ বিষয়ে ভুক্তভোগী রোগীরা স্বাস্থ্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

আজকের সর্বশেষ সব খবর